This Article is From Jun 12, 2020

২৪ ঘণ্টায় ১০,০০০ পেরিয়ে গেল করোনা রোগীর সংখ্যা, মৃত ৩৯৬

Coronavirus cases in India: সংক্রমণের বিচারে ব্রিটেনকেও ছাড়িয়ে গেছে ভারত, দেশে মোট করোনা আক্রান্ত ২,৯৭,৫৩৫ জন

২৪ ঘণ্টায় ১০,০০০ পেরিয়ে গেল করোনা রোগীর সংখ্যা, মৃত ৩৯৬

Coronavirus: প্রতিদিনই হু-হু করে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

হাইলাইটস

  • দেশে মোট করোনা আক্রান্ত ২,৯৭,৫৩৫ জন
  • এখনও পর্যন্ত ওই রোগের সঙ্গে লড়ে সুস্থ হয়েছেন ১,৪৭,১৯৫ জন
  • দেশের মধ্যে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত রাজ্য হল মহারাষ্ট্র
নয়া দিল্লি:

ভারতে লাগাতার বেড়ে চলেছে করোনা ভাইরাসে (Coronavirus) আক্রান্তের সংখ্যা। ২৪ ঘণ্টায় ১০,০০০ পেরিয়ে গেল করোনা (Coronavirus cases in India) রোগীর সংখ্যা, মৃত ৩৯৬। ভারতে এখনও পর্যন্ত মোট করোনা আক্রান্ত ২,৯৭,৫৩৫ জন। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া তথ্যে দেখা যাচ্ছে, সংক্রমণের বিচারে ব্রিটেনকেও ছাড়িয়ে গেছে ভারত। আমেরিকা, ব্রাজিল এবং রাশিয়ার পরে করোনা ভাইরাসের রোগীর সংখ্যা অনুযায়ী ভারত এখন বিশ্বের মধ্যে চতুর্থ স্থানে রয়েছে। মারাত্মক এই ভাইরাসে একদিনের মধ্যে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১০,৯৫৬ জন।

বৃহস্পতিবার মহারাষ্ট্রে নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন আরও ৩,৬০৭ জন এবং মারা গেছেন ১৫২ জন। ওই রাজ্যের এক স্বাস্থ্য আধিকারিক জানিয়েছেন, দেশের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্থ রাজ্যটি এখন সংক্রমণের হিসাবে কানাডাকেও ছাড়িয়ে গেছে। মহারাষ্ট্রে এখনও পর্যন্ত ওই মারণ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন মোট ৯৭,৬8৮ জন। ৪৬,০৭৮ জন মানুষ ইতিমধ্যেই ওই রোগ থেকে সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

"উদ্বেগের কিছু নেই", অর্থনীতি ঠিক আছে, রামচন্দ্র গুহকে জবাব দিলেন নির্মলা সীতারামন

বৃহস্পতিবার মুম্বইয়ে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন আরও ১,৫৪০ জন। দেশের বাণিজ্যনগরীতে মোট করোনা আক্রান্ত ৫৪,০৮৫ জন। ওই শহরে এখনও পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ১,৯৫৪ জন।

রাজ্যের ভাইরাল ভিডিও-কে ''নির্মম'' বলে আখ্যা দিলেন রাজ্যপাল

ওদিকে মহারাষ্ট্রের পরেই কোভিড- ১৯ সংক্রমণের হিসাবে যে রাজ্য দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে তা হল তামিলনাড়ু। ওই রাজ্যে মোট করোনা আক্রান্ত ৩৮,৭১৬ জন। চেন্নাইয়েই শুধু করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ২৭,০০০ ছাড়িয়েছে।  এদিকে ওই শহরের পুরসভা এমন একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে যা ঘিরে রীতিমতো বিতর্ক তৈরি হয়েছে।তারা জানিয়েছে যে, কোভিড -১৯ পরীক্ষার জন্য নমুনা দিতে যাঁরা ল্যাবগুলোতে এসেছেন তাঁদেরও আগামী ১৪ দিনের জন্যে বাধ্যতামূলক ভাবে কোয়ারান্টাইনে থাকতে হবে। এমনকী করোনা আক্রান্ত সন্দেহে যে ব্যক্তির নমুনা পরীক্ষার জন্যে পাঠানো হয়েছে তাঁর পরিবারের সদস্যদেরও এই সময়ে কোয়ারান্টাইনে থাকতে হবে। পুরসভা মনে করছে এভাবেই নাকি করোনা ভাইরাসের ছড়িয়ে পড়া আটকানো সম্ভব হবে।

ভারতে ক্রমেই বাড়ছে করোনা থেকে পুনরুদ্ধারের সংখ্যাও। এই পুনরুদ্ধারের হার বেড়ে শুক্রবার সকালে ৪৯.৪৭ শতাংশ গিয়ে দাঁড়িয়েছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত মোট ১,৪৭,১৯৫ জন সুস্থ হয়েছেন।

দেশে এখনও পর্যন্ত মোট ৫৩,৬৩,৪৫ টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে, যার মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টাতেই নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১,৫০,৩০৫ টি ।