This Article is From Jun 16, 2020

"গুজরাট মডেলের আসল রূপ প্রকাশ্য়ে": করোনা পরিস্থিতি নিয়ে রাহুল গান্ধির কটাক্ষ

Gujarat Coronavirus Cases: করোনা আক্রান্তের বিচারে মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু ও দিল্লির পরে গুজরাট হলেও ওই রাজ্যে মৃত্যুর হার সর্বাধিক

Coronavirus: মহামারী পরিস্থিতি সামাল দিতে ব্যর্থ মোদি সরকার, এর আগেও সমালোচনা করেন রাহুল গান্ধি

হাইলাইটস

  • দেশের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে লাগাতার কেন্দ্রকে আক্রমণ রাহুল গান্ধির
  • গুজরাটে করোনায় একের পর এক মৃত্যুর পরিসংখ্যান তুলে ধরেন কংগ্রেস সাংসদ
  • নরেন্দ্র মোদির রাজ্যের দুরবস্থা তুলে ধরে কটাক্ষ তাঁর
নয়া দিল্লি:

করোনা ভাইরাস (Coronavirus) মহামারী আকারে দেখা দিয়েছে ভারত আর সেই পরিস্থিতি সামাল দিতে ব্যর্থ মোদি সরকার, গত কয়েকদিন ধরে লাগাতার আক্রমণ করে চলেছেন রাহুল গান্ধি। এবার 'গুজরাট মডেল' নিয়েও কটাক্ষ করার সুযোগ হাতছাড়া করলেন না তিনি (Rahul Gandhi)। মঙ্গলবার কংগ্রেস সাংসদ তাঁর টুইটে শাসকদল বিজেপিকে লক্ষ্য করে লেখেন যে, "গুজরাট মডেলের আসল রূপ প্রকাশ্য়ে" এসে গেছে, করোনায় মৃত্যুর হিসাবে দেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি খারাপ অবস্থায় ওই রাজ্য (Gujarat Coronavirus Cases)। দেশের সব রাজ্যের মৃত্যুর গড় হারের থেকে গুজরাটে মৃত্যুর হার প্রায় দ্বিগুণ। সোমবারও মোদি সরকারকে আক্রমণ করেছিলেন রাহুল। "অবজ্ঞার চেয়ে বেশি মারাত্মক ঔদ্ধত্য", বিজ্ঞানী অ্যালবার্ট আইনস্টাইনের উদ্ধৃতি তুলে ধরে এমন কথাই বলেছিলেন কংগ্রেসের প্রাক্তন সর্বভারতীয় সভাপতি।

ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩.৪৩ লক্ষ ছাড়াল, তবে সুস্থতার হার ৫২%

"কোভিড-১৯ এর মৃত্যুর হার: গুজরাট: ৬.২৫% মহারাষ্ট্র: ৩.৭৩% রাজস্থান: ২.৩২% পঞ্জাব: ২.১৭% পুদুচেরি: ১.৯৮% ঝাড়খণ্ড: ০.৫% ছত্তিশগড়:০.৩৫%, সুতরাং গুজরাট মডেলের আসল রূপ প্রকাশ্য়ে", বিবিসির একটি প্রতিবেদন শেয়ার করে ওই কথা লেখেন রাহুল গান্ধি। বিবিসি ওই প্রতিবেদনে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নিজে রাজ্য গুজরাটে যেভাবে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা বাড়ছে সেই পরিসংখ্য়ান তুলে ধরা হয়েছিল।

করোনা প্রতিরোধে পুলিশ কর্মীদের গরম জল আর ভেষজ চা পানের পরামর্শ

করোনা আক্রান্তের বিচারে মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু ও দিল্লির পরে গুজরাট হলেও ওই রাজ্যে মৃত্যুর হার সর্বাধিক।গত মাসে, গুজরাটে প্রতিদিন গড়ে ৪০০ জন করে নতুন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত মানুষের সন্ধান মিলেছে।কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের মতে ওই রাজ্যে মোট ২৪,১০৪ জন করোনার কবলে পড়েছেন এবং সেখানে মৃত্যুর সংখ্যা ১,৫০০ কেও ছাড়িয়ে গেছে। তবে রাজ্যের মোট করোনা আক্রান্তের মধ্যে ৭৫ শতাংশ রোগীই কিন্তু রয়েছে আমেদাবাদে। এদিকে গুজরাটে ফের লকডাউনের কড়াকড়ি করা হবে এই গুজব উড়িয়ে দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি।

ভারতে সব মিলিয়ে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৩,৪৩,০৯১ জন। গত ২৪ ঘণ্টাতেই নতুন করে করোনার (COVID- 19) কবলে পড়েছেন ১০,৬৬৭ জন। একদিনের মধ্যে আরও ৩৮০ জনের মৃত্যু হওয়ায় দেশে কোভিড-১৯ এর কারণে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৯,৯০০ তে।

তবে ওই রোগ থেকে পুনরুদ্ধারের হার বাড়ায় আশার আলো দেখছেন অনেকেই। ওই মারণ রোগের সঙ্গে লড়াই করে বর্তমানে সুস্থ জীবনে ফিরে গেছেন ৫২.৪৬ শতাংশ রোগী। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত দেশে মোট ১,৮০,০১৩ জন মানুষ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েও চিকিৎসা সহায়তায় সুস্থ হয়েছেন।