নদিয়ায় ২ বছরের মেয়েকে নিয়ে আত্মঘাতী ২৪ বছরের তরুণী

রুমার মা’র দাবি, স্বামীর সঙ্গে বনিবনা না হওয়াতেই আত্মহত্যা করেছে তাঁর মেয়ে। তিনি জানান, পাঁচ বছর আগে রুমার বিয়ে হয়েছিল।

নদিয়ায় ২ বছরের মেয়েকে নিয়ে আত্মঘাতী ২৪ বছরের তরুণী

পুলিশ মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছে।

এক ২৪ বছরের তরুণী ও তাঁর ২ বছরের কন্যার দগ্ধ মৃতদেহ উদ্ধার হল নদিয়া জেলার (Nadia District) তাহেরপুর থেকে। জানা গিয়েছে, মৃতা তরুণীর নাম রুমা দাস। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে তাহেরপুরের কামগাছিতে নিজের মায়ের কাছে এসেছিলেন মৃতা তরুণী। এদিন প্রতিবেশীরা ঘর থেকে ধোঁয়া বেরোতে দেখে ছুটে আসেন। পরে দরজা ভেঙে দেখা যায় রুমা ও তাঁর শিশুকন্যা ঘরের ভিতরে দগ্ধ অবস্থায় পড়ে রয়েছেন। কাছে গিয়ে দেখা যায় দু'জনেরই মৃত্যু হয়েছে। রুমার মা আন্নার দাবি, স্বামীর সঙ্গে বনিবনা না হওয়াতেই আত্মহত্যা করেছে তাঁর মেয়ে। তিনি জানান, পাঁচ বছর আগে রুমার বিয়ে হয়েছিল।

আন্না আরও জান‌ান, বীরনগরের বাসিন্দা পেশায় শ্রমিক লক্ষণ দাসের সঙ্গে তাঁর মেয়ের বিয়ে হওয়ার পর থেকেই দু'জনের মধ্যে নিয়মিত ঝগড়া লেগেই থাকত।

স্বামীর সঙ্গে্ ঝগড়া করে কয়েক দিন আগে মায়ের কাছে এসেছিলেন রুমা। আন্না কাজের লোক হিসেবে কাজ করেন। এদিনও সকালে তিনি কাজে বেরিয়েছিলেন। সেই সময়ই রুমা নিজের ও তাঁর মেয়ের শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন জ্বালিয়ে দেন।

আন্না জানাচ্ছেন, ‘‘আমি খবর পেয়েই ছুটে আসি। প্রতিবেশীরা রুমার ঘর থেকে ধোঁয়া বেরোতে দেখেছিল। দরজা ভিতর থেকে বন্ধ ছিল। প্রতিবেশীরা দরজা ভেঙে ভিতরে ঢুকে দেখতে পায় রুমা তার মেয়ের সঙ্গে পড়ে রয়েছে। ততক্ষণে দু'জনেরই মৃত্যু হয়েছে।''

পুলিশ মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছে। শোকার্ত আন্না বলছেন, ‘‘মেয়ে বাঁচতে চেয়েছি‌ল এবং আমাকে কাজ খুঁজে দিতে বলেছিল। আমার নাতনি বলত সে বাবা-মায়ের রোজকার ঝগড়া সহ্য করতে পারছে না।''



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
Listen to the latest songs, only on JioSaavn.com