কনকাঞ্জলি দিয়ে ‘বাবা মায়ের ঋণ’ শোধের প্রথা ভেঙে নজির গড়লেন হুগলির প্রিয়া মান্না

মায়ের দিকে পিছন ঘুরে একমুঠো চাল ছুঁড়ে দিয়ে বাবা মায়ের সব ঋণ শোধের রীতি মানতে অস্বীকার করেছেন হুগলির বেগমপুরের বাসিন্দা প্রিয়া মান্না।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS
কনকাঞ্জলি দিয়ে ‘বাবা মায়ের ঋণ’ শোধের প্রথা ভেঙে নজির গড়লেন হুগলির প্রিয়া মান্না

প্রিয়ার এক বোন এই ভিডিওটি মোবাইলে রেকর্ড করেন


কলকাতা: 

হিন্দু মতে বিয়ের নানা রীতি নিয়ে প্রশ্ন অনেকের মনেই থাকে, সে সিঁদুর দান, ভাতকাপড় হোক বা কনকাঞ্জলি। প্রশ্ন নিয়েই কোটি কোটি যুবক যুবতী বিয়ে করেন, কেউ পালটা প্রশ্ন তোলেন না নানান এসব অদ্ভুত নিয়ম নিয়ে। সম্প্রতি পশ্চিমবঙ্গের এক সদ্য বিবাহিতাই প্রশ্ন তুলেছেন বিয়ের কনকাঞ্জলি প্রথাটি নিয়ে। বাঙালি মতে বিয়ের পরের দিন শ্বশুরবাড়িতে ‘বিদায়' দেওয়া হয় মেয়েকে। বেরনোর সময় কনেকে বাবা মায়ের ঘর ছাড়তে ছাড়তে অভিভাবকদের সব ঋণ শোধের কথা বলতে বাধ্য করা হয়। মুশকিল হল, প্রায় সকলেই অবলীলায় সেসব বলে পাড়ি দেন শ্বশুরবাড়ি। কনকাঞ্জলি'র এই রীতিটিই অগ্রাহ্য করেছেন এই নববধূ। মায়ের দিকে পিছন ঘুরে একমুঠো চাল ছুঁড়ে দিয়ে বাবা মায়ের সব ঋণ শোধের রীতি মানতে অস্বীকার করেছেন হুগলির বেগমপুরের বাসিন্দা প্রিয়া মান্না।

ভুট্টা পোড়াতে অভিনব পন্থা নিলেন ৭৫ বছরের এই বৃদ্ধা, দেখুন ভিডিও

গত ২৭ জানুয়ারি বিয়ে ছিল প্রিয়ার, পরের দিন তাঁর ‘বিদায়ে'র সময় তাঁকে একমুঠো চাল ছুঁড়ে দিয়ে বলতে বলা হয় ‘বাবা মায়ের সব ঋণ শোধ করলাম'। চাল ছুঁড়লেও মুখে কিছুই বলেননি প্রিয়া, পাশ থেকে একজন জোর করে বলাতে গেলে রেগেই যান তিনি। তাঁর সাফ কথা, বাবা মা সারাজীবন একজন সন্তানের জন্য যা করেন তা কোনওভাবেই মিটিয়ে দেওয়া সম্ভব নয়। তাই ওই মুহুর্তে দাঁড়িয়ে কনকাঞ্জলির রীতিটি মানতে অগ্রাহ্য করেন তিনি। কোনও কান্নাকাটি, বা ছেড়ে যাওয়ার যন্ত্রণা নয়, বরং হাসিমুখে আর পাঁচটা দিন কাজে বেরোনর মতো করেই রাজারহাটের বিষ্ণুপুরে শ্বশুরবাড়ি রওনা হয়েছেন প্রিয়া। বলেছেন। “আমি তোমাদেরই ছিলাম, আছি।”

নীচের ভিডিওটি দেখুন:

 
 

প্রিয়ার এক বোন এই ভিডিওটি মোবাইলে তুলেছিল বিয়ের সময়, পরে প্রিয়া তা আপলোড করেন ফেসবুকে। ২ মিনিটের এই ভিডিওতে ৬ হাজারেরও বেশি মানুষ নিজের মন্তব্য জানিয়েছেন এবং ৭৫ হাজার মানুষ শেয়ার করেছেন।

প্রিয় বন্ধু সানিয়া মির্জার কাছ থেকে কী উপহার চাইলেন পরিণীতি চোপড়া?

প্রথাকে প্রশ্ন করা, এবং যুক্তি দিয়ে চিরাচরিত ভ্রান্ত প্রথা ভাঙার যে নজির তৈরি করেছেন প্রিয়া, তা তাঁর থেকে প্রত্যাশা স্বাভাবিকভাবেও বাড়িয়ে দিয়েছেন। রীতিকে চ্যালেঞ্জ করার লক্ষ্যে তিনি আগামীর অনুপ্রেরণা হয়ে উঠতে পারেন কিনা, সেটাই দেখার।

Click for more trending news




পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................