অযোধ্যায় রামমন্দিরের ভূমিপুজো! পত্র দিয়ে নয়, ফোনে আমন্ত্রিত আডবানি- জোশী

আদালতের রায় তাঁর জীবনে কোনও প্রভাব ফেলবে না। এমনটাই দাবি করেছেন মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী উমা ভারতীও

অযোধ্যায় রামমন্দিরের ভূমিপুজো! পত্র দিয়ে নয়, ফোনে আমন্ত্রিত আডবানি- জোশী

এই অনুষ্ঠানে ডাক পায়নি এলকে আডবানি ও এমএম জোশী।

নয়াদিল্লি:

৫ অগাস্ট অযোধ্যায় রামমন্দিরের বর্ণাঢ্য ভূমিপুজো (Ayodhya Rammandir Bhoomi Pujon) প্রায় ৫০ জন ভিভিআইপির উপস্থিতিতে আয়োজিত হবে এই অনুষ্ঠান। উপস্থিত থাকার কথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিরও (PM Modi as invitee)। এই উপলক্ষ্যে আমন্ত্রণ পেয়েছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী উমা ভারতী। আমন্ত্রিত উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী কল্যাণ সিং। কিন্তু সূত্রের খবর, আমন্ত্রণপত্র পাঠানো হয়নি প্রাক্তন উপ-প্রধানমন্ত্রী লালকৃষ্ণ আডবানি ও মুরলীমনোহর জোশীকে (No invitation sent to Advani-Joshi)। ঘটনাচক্রে উপরের নামগুলোর সঙ্গে অযোধ্যায় রামমন্দির আন্দোলন সমার্থক। এই অনুষ্ঠান প্রসঙ্গে কল্যাণ সিং বলেছেন, "৬ ডিসেম্বর, ১৯৯২-তে যা হয়েছিল, তার জন্য আমার কোনও আক্ষেপ নেই। এবং সেই ঘটনার মূল্য আমি চুকিয়েছি। তাই ৫ অগাস্টের অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবো।" এই পুজোর দায়িত্বে থাকা রামমন্দির ট্রাস্ট সূূূত্রে খবর, আডবানী-জোশীকে ফোনে আমন্ত্রণ করা হবে। বাকিরা পত্রপাঠ পেয়ে যাবেন আমন্ত্রণ পত্র।

 গত সপ্তাহে সিবিআইয়ের বিশেষ আদালতে বাবরি ধ্বংস মামলার অন্যতম অভিযুক্ত হিসেবে জবানবন্দি দিয়েছেন লালকৃষ্ণ আডবানি। বয়ান রেকর্ড করা হয়েছে এমএম জোশীরও। ঘনিষ্ঠ মহলে প্রবীণ এই বিজেপি নেতা বলেছেন, "আমার বিরুদ্ধে চক্রান্ত হয়েছে। মসজিদ ধ্বংসের সঙ্গে আমার কোনও সম্পর্ক নেই।" একইভাবে আদালতের রায় তাঁর জীবনে কোনও প্রভাব ফেলবে না। এমনটাই দাবি করেছেন মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী উমা ভারতীও।

17btasmk

পাঁচ তারিখ এই ভূমিপুজো আয়োজন করা হয়েছে। 

এদিকে, ৫ অগাস্ট অযোধ্যায় বর্ণাঢ্য রামমন্দিরের ভূমিপুজো। জেলাজুড়ে চূড়ান্ত প্রস্তুতি। এই পরিবেশে ভূমিপুজো আয়োজনের সঙ্গে জড়িত ১৭ জন করোনা সংক্রমিত। এই সংক্রমিতদের মধ্যে রয়েছেন মন্দির কমিটির এক সেবায়েত এবং ১৬ পুলিশকর্মী। এই পুজোয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি-সহ ৫০ জন ভিভিআইপির উপস্থিত থাকার সম্ভাবনা। মন্দির কমিটির প্রধান সেবায়েতের সহকারী প্রদীপ দাস-সহ ১৭ জনের সংক্রমণে স্বাভাবিক কারণে জেলাজুড়ে আশঙ্কা ছড়িয়েছে। যদিও মন্দির কমিটির তরফে ঘোষণা করা হয়েছে, কোভিড-১৯ প্রোটোকল মেনেই এই ভূমিপুজো আয়োজন করা হবে। কমবেশি ২০০ জন উপস্থিত থাকবেন এই অনুষ্ঠানে। এমনটাই মন্দির কমিটি সূত্রে খবর।

জানা গিয়েছে, অযোধ্যার রামমন্দিরস্থল থেকে তিন কিমি দূরে হেলিপ্যাড তৈরি করা হয়েছে। সেখানেই নামবে প্রধানমন্ত্রীর কপ্টার। পাশাপাশি মন্দির থেকে জনপথে আসা-যাওয়ার রাস্তা চওড়া করা হয়েছে। ভগবান রামের জীবনকাহিনী কারুশিল্পের মাধ্যমে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে স্থানীয় দেওয়ালে। শহরজুড়ে সিসিটিভি পর্দা বসানো হয়েছে। উৎসাহী নাগরিকরা এই পর্দায় দেখতে পারবেন ভূমিপুজো।

 PTI থেকে সংগৃহীত