EXCLUSIVE: অসমে তৈরি নাগরিকপঞ্জির ওপর ভরসা নেই খোদ বিজেপি-র!

অসমে অনুপ্রবেশকারী বাংলাদেশিদের সরাতে এবং অসমের নাগরিকদের শিক্ষা-সংস্কৃতির উন্নয়নের জন্যই নাগরিকত্ব তালিকা বা এনআরসি তৈরিতে জোর দিয়েছিল বিজেপি সরকার।

 Share
EMAIL
PRINT
COMMENTS

প্রতীকী ছবি


গুয়াহাটি: 

হাইলাইটস

  1. এনআরসি নিয়ে রাজনীতি
  2. ৩১ অগাস্টের তালিকা সম্পূর্ণ হবে
  3. এনআরসি তালিকা তৈরিতে যুক্ত অফিসারের ওপর হামলা, অভিযোগ বিজেপির

অসমে অনুপ্রবেশকারী বাংলাদেশিদের সরাতে এবং অসমের নাগরিকদের গুরুত্ব, সুযোগসুবিধা, শিক্ষা-সংস্কৃতির উন্নয়নের জন্যই নাগরিকপঞ্জি বা এনআরসি (NRC) তৈরিতে জোর দিয়েছিল বিজেপি সরকার (ASSAM BJP)। খবর, এবার সেই ব্যবস্থার ওপর থেকে নাকি ভরসা (DOUBTS) উঠে গেছে খোদ কেন্দ্রীয় শাসকদলের। এর আগে কেন্দ্রীয় ও অসম বিজেপি সরকারের দাবি ছিল, তালিকার ২০ শতাংশ ব্যক্তির নাম ফের খতিয়ে দেখা হবে। সুপ্রিম কোর্ট সরকারের সেই দাবি খারিজ করে দিয়েছে। সুপ্রিম নির্দেশ অনুযায়ী, ইতিমধ্যেই ২৭ শতাংশের নাম একাধিক বার সংশোধিত হয়ে এসেছে। তাই, নতুন করে তালিকা সংশোধনের আর দরকার নেই। এদিকে বিজেপি-র দাবি, আরও একবার পুরো তালিকা সংশোধিত না হলে বাংলাদেশি অনুপ্রবেশ মুক্ত হবে না অসম। 

অসমের সচেতন নাগরিক মঞ্চের অধ্যক্ষ চন্দন ভট্টাচার্য স্বয়ং অসমে তৈরি হওয়া নাগরিকপঞ্জি নিয়ে যথেষ্ট চিন্তিত। ৩১ অগস্টের মধ্যে তালিকা সম্পূর্ণ করতে হবে। কিন্তু তাঁর যুক্তি, সেই তালিকা বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারী ছাড়া হবে না। ইতিমধ্যেই তিনি রাষ্ট্রপতির কাছে ২৫ লক্ষ লোকের স্বাক্ষর সম্বলিত একটি স্মারক লিপি জমা দিয়ে অভিযোগ জানিয়ে বলেছেন, তালিকায় প্রচুর সংখ্যক বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারীর নাম রয়েছে। 

লিঙ্গসাম্যের লক্ষ্যেই এই বিল: তিন তালাক বিল নিয়ে লোকসভায় বলল কেন্দ্র

প্রসঙ্গত, প্রথম তালিকায় যে ৪০ লাখ মানুষের নাম ওঠেনি তাঁরা মোট ১৬.২ পরিবারের অন্তর্গত। এর মধ্যে ৩৬ লাখ লোকের নাম জায়গা পাবে কিনা নাগরিক পঞ্জিতে তা পুনরায় বিবেচিত হয়। তার থেকে ২ লাখ লোকের নাম তালিকাভুক্ত করা হয়েছে। 

আজ লোকসভায় পেশ হবে তিন তালাক বিল

গত বছর সুপ্রিম কোর্ট তালিকায় অন্তর্ভুক্ত লোকের ১০ শতাংশের নাম পুনরায় বিবেচনার আর্জি মেনে নেয়। এরপরেও যখন ২৭ শতাংশের নাম পুরর্বিবেচনার কথা আবার বলে বিজেপি সরকার তখন সেই আবেদন খারিজ হয়ে যায় কোর্টে। বারেবারে পুনর্বিবেচনার আর্জি জানানোয় অনেক রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বই বলছেন, শুরুতে উৎসাহ দেখালেও এখন আর এনআরসি নিয়ে আগ্রহ নেই বিজেপি সরকারের।  

৩১ অগাস্ট চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশের আগে আরেকবার তালিকা দেখে নেওয়ার সুযোগ এবং সময় দুটোই হাতে পাচ্ছে বিজেপি। এখন দেখার, সেই সময় কতটা কাজে লাগাতে পারে কেন্দ্রীয় এবং অসম সরকার। 

VIDEO: হম লোগ: বিজেপি পক্ষে না বিপক্ষে?



পশ্চিমবঙ্গের খবর, কলকাতার খবর , আর রাজনীতি, ব্যবসা, প্রযুক্তি, বলিউড আর ক্রিকেটের সকল বাংলা শিরোনাম পড়তে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

NDTV Beeps - your daily newsletter

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................

................................ Advertisement ................................