তারা ঝলমলে উচ্চমাধ্যমিক, পরীক্ষা, শুটিং দুটোই চলছে দিতিপ্রিয়ার

দু’জনেই উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা দিচ্ছেন বাংলা, ইংরেজি মাধ্যমে। প্রথমজন দিতিপ্রিয়া রায়। দ্বিতীয়জন সানা গাঙ্গুলি।

তারা ঝলমলে উচ্চমাধ্যমিক, পরীক্ষা, শুটিং দুটোই চলছে দিতিপ্রিয়ার

উচ্চমাধ্যমিক দিচ্ছেন দিতিপ্রিয়া

কলকাতা:

একজন নিজেই তারকা। অন্যজনের বাবা আন্তর্জাতিক তারকা। প্রথম জন পরীক্ষা, শুটিং---দুটোই চালিয়ে যাচ্ছেন সমানভাবে। অন্যজন নাচের প্র্যাকটিশ থামিয়ে আপাতত শুধুই পড়াশোনায় মনোযোগী। দু'জনেই উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা (High Secondary Examination 2020) দিচ্ছেন বাংলা, ইংরেজি মাধ্যমে। প্রথমজন দিতিপ্রিয়া রায় (Ditipriya Roy)। ছোটপর্দায় 'রানি রাসমণি' হিসেবে যিনি মারাত্মক জনপ্রিয়। দ্বিতীয়জন বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলির মেয়ে সানা গাঙ্গুলি ( Sana Ganguly)।

২০১৭-র ২৪ জুলাই জি বাংলায় আসে রানি রাসমণির জীবন নিয়ে তৈরি মেগা 'করুণাময়ী রানি রাসমণি'। সেখানেই ছোটপর্দা প্রিয়া হয়ে ওঠেন দিতিপ্রিয়া তাঁর অভিনয় গুণে। তারও আগে তাঁকে দেখা যায় ২০১৫-য় সৃজিত মুখোপাধ্যায়ের ছবি 'রাজকাহিনি'তে 'বুঁচকি' চরিত্রে। ছোট থেকেই অভিনয় আর পড়াশোনা আষ্টেপৃষ্ঠে জড়িয়ে দিতিপ্রিয়াকে। তাই উচ্চমাধ্যমিকের মতো গুরুত্বপূর্ণ পরীক্ষার সময়েও ছুটি নেননি তিনি। একদিন অন্তর একদিন পরীক্ষা হওয়ায় ছুটির দিন শুটিং করছেন আর পাঁচটা দিনের মতোই। কারণ, তাঁর কাঁধে রানি রাসমণি মেগার গুরু দায়িত্ব। ফাঁক পড়েনি দোল খেলাতেও। পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, বাংলা এবং ইংরেজি---দুটো পরীক্ষাই মভালো হয়েছে তাঁর। হিউম্যানিটি নিয়ে পড়া পাঠভবনের ছাত্রী দিতিপ্রিয়া শুটিংয়ের ফাঁকে পড়াশোনায় অভ্যস্ত। ফলে, কোনও সমস্যা হয়নি এখনও পর্যন্ত। রেজাল্ট বেরোনোর পর কলেজে ভর্তি হয়ে অভিনয়-পড়া পাশাপাশি চালিয়ে যাবেন। তবে পরীক্ষার কটা দেন যাতে অসুস্থ হয়ে না পড়েন তার জন্য বাইরের খাওয়া পুরোপুরি বন্ধ রেখেছেন দিতিপ্রিয়া।

#sanaganguly

A post shared by ????SANA GANGULY FC???? (@__sana_ganguly__) on

সিবিএসই-র দ্বাদশ ক্লাসের পরীক্ষা দিচ্ছেন ৩৯তম বিসিসিআই সভাপতি এবং প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেট অধিনায়ক সৌরভ গাঙ্গুলির মেয়ে সানাও। অষ্টাদশী সানার পড়াশোনা প্রথমে লা-মার্টিনিয়ার্স। পরে লরেটো হাউজ। খবর, স্কুলের পড়া শেষ করে সানা উড়ে যাবেন ইংলণ্ডে। অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক হবেন তিনি। মা ডোনা গাঙ্গুলির মতো সানাও ওড়িশি নৃত্যশিল্পী। শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের তালিম নিয়েছেন কৌশিকী চক্রবর্তীর থেকে।