অযোধ্যায় সরযূ নদীর তীরে জ্বলল ৬ লক্ষ প্রদীপ, নাম উঠল গিনেস বুকে

গত বছর জ্বালানো হয়েছিল ৩ লক্ষ প্রদীপ। এবার সেই রেকর্ড ভেঙে প্রায় দ্বিগুণ প্রদীপ জ্বলে উঠল সরযূ নদীতীরে।

অযোধ্যার সরযূ নদীর তীরে জ্বালানো হল ৬ লক্ষ মাটির প্রদীপ।

অযোধ্যা:

অযোধ্যায় রাম জন্মভূমি-বাবরি মসজিদ মামলায় সুপ্রিম কোর্ট রায় দেওয়ার ঠিক আগেই নতুন ইতিহাস তৈরি হল সরযূ নদীর তীরে। অযোধ্যার সরযূ নদীর তীরে জ্বালানো হল ৬ লক্ষ মাটির প্রদীপ। শনিবার সন্ধ্যা নামতেই বিপুল সংখ্যক মানুষ এখানে উপস্থিত হন ও প্রদীপ জ্বালিয়ে মুহূর্তটিতে স্মরণীয় করে রাখেন। গত বছর জ্বালানো হয়েছিল ৩ লক্ষ প্রদীপ। এবার সেই রেকর্ড ভেঙে প্রায় দ্বিগুণ প্রদীপ জ্বলে উঠল সরযূ নদীতীরে। উৎসবের প্রারম্ভে এখানে হাজির হওয়া সাধারণ মানুষ ও কর্মীদের মধ্যে উৎসাহ ছিল দেখবার মতো। উত্তরপ্রদেশ সরকারের তথ্য অধিকর্তা শিশির জানিয়েছেন, ‘‘গত বছরের রেকর্ড ছিল ঘাটে তিন লক্ষ এক হাজার ছিয়াশিটি প্রদীপ জ্বালানোর। এবার ৪ লক্ষ ১০ হাজার প্রদীপ জ্বালানো হল। ‘গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ড'-এর প্রতিনিধি ঘোষণা করেছেন এটি বিশ্বরেকর্ড। এছাড়াও ঘাট সংলগ্ন আরও ২ লক্ষ প্রদীপ জ্বালানো হয়েছে। সব মিলিয়ে ৬ লক্ষেরও বেশি প্রদীপ জ্বালানো হয়েছে।''

Mann Ki Baat: প্রধানমন্ত্রীর ‘মন কি বাত'-এ উঠে এল অযোধ্যা মামলার কথা

‘রাম কি পৈধি' ঘাটে জ্বালানো হয়েছে চার লক্ষ দশ হাজার প্রদীপ।

এর আগে এই উৎসবকে রাজ্যের উৎসব বলে ঘোষণা করা উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী টোগী আদিত্যনাথ বলেন, ‘‘বিগত সরকার অযোধ্যা নিয়ে ভীত ছিলেন এবং এখানে কখনও আসতে চাইতেন না। আমার আড়াই বছরের মেয়াদে আমি ১৮ বার অযোধ্যায় এসেছি। যখনই আমি এসেছি আমি এই জায়গাটির জন‌্য নিয়ে এসেছি কোটি টাকার প্রকল্প।''

“প্লাস্টিক খেয়ে মরে যাচ্ছে গরু”: প্লাস্টিক ব্যাগের ব্যবহার বন্ধ করতে অনুরোধ অমিত শাহের

Newsbeep

মুখ্যমন্ত্রী এবার এখানে ২২৬ কোটি টাকার প্রকল্পের কথা ঘোষণা করেছেন।

তিনি বলেন, ‘‘রাম রাজ্য হল এমন এক সরকারি ব্যবস্থাপনা, যেখানে ধর্ম, জাত, ভাষা, অঞ্চল ভেদাভেদে মানুষের মধ্যে বিচ্ছিন্নতা তৈরি হয় না। গত পাঁচ বছরে সরকার প্রতিশ্রুতিমতো নানা প্রকল্পের রূপায়ন করেছে এখানে। এটাই আধুনিক রাম রাজ্যের উদাহরণ।''

তিনি বলেন, যাঁরা ‘সনাতন ধর্ম'-এর অনুসারী, তাঁদের জন্য অযোধ্যা পবিত্র এক স্থান, ঠিক যেমন প্রত্যেক ধর্মেরই রয়েছে।